ঢাকা ০৬:০৬ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পঞ্চগড়ের সেই মাদরাসার কমিটি ভেঙ্গে দিল শিক্ষা বোর্ড 

পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলার লক্ষীপুর ইসলামিয়া আলিম মাদরাসার অধ্যক্ষ আব্দুল মতিন সরকার শিক্ষা বোর্ডের কাগজ জাল সৃষ্টি করে গভর্নিং বডি অনুমোদন নেয়ায় কমিটি ভেঙ্গে দিয়েছে শিক্ষা বোর্ড। একই সাথে আহবায়ক কমিটি গঠন করে অনুমোদন নিতে বলা হয়েছে।
বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড। মাদরাসা বোর্ডের চেয়ারম্যানের নির্দেশে রেজিস্ট্রার প্রফেসর মো.সিদ্দিকুর রহমান ৩ মে স্বাক্ষরিত এক পত্রে এ আদেশ দেন।
এর আগে, পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলার লক্ষীপুর ইসলামিয়া আলিম মাদরাসার অধ্যক্ষ আব্দুল মতিন সরকার শিক্ষা বোর্ডের কাগজ জাল সৃষ্টি করে গভর্নিং বডি অনুমোদন করেছেন। মর্মে সাবেক অভিভাবক সদস্য আনছারুল ইসলাম অভিযোগ দায়ের করেন।তার প্রেক্ষিতে ২৮ মার্চ শিক্ষা বোর্ড অধ্যক্ষকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়ে ১০ কার্য দিবসের মধ্যে সন্তোষজনক জবাব চেয়েছিলেন।
অধ্যক্ষের দেয়া জবাব শিক্ষা বোর্ডের কাছে সন্তোষজনক না হওয়ায় এবং বোর্ডের কাগজ জাল সৃষ্টি করে গভর্নিং বডি কমিটি অনুমোদিত ভেঙ্গে দিয়ে আহবায়ক কমিটি করে অনুমোদন নিতে বলা হয়েছে।
 মাদরাসার নানা ধরনের অনিয়ম আর জাল কাগজ পত্র তৈরি করে কমিটি করার বিষয় নিয়ে একাধিক পত্রিকা ও অনলাইন নিউজ পোর্টালে সংবাদ প্রকাশিত হয়। পরে প্রকাশিত নিউজ নিয়ে মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড নড়েচড়ে বসে। পরবর্তীতে কমিটি ভেঙে দিতে বাধ্য হলো।
ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে যুদ্ধ বিরতি চুক্তিতে বাধা দেয়ার অভিযোগ

পঞ্চগড়ের সেই মাদরাসার কমিটি ভেঙ্গে দিল শিক্ষা বোর্ড 

আপডেট সময় : ১২:৪৭:৪৫ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ মে ২০২৩
পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলার লক্ষীপুর ইসলামিয়া আলিম মাদরাসার অধ্যক্ষ আব্দুল মতিন সরকার শিক্ষা বোর্ডের কাগজ জাল সৃষ্টি করে গভর্নিং বডি অনুমোদন নেয়ায় কমিটি ভেঙ্গে দিয়েছে শিক্ষা বোর্ড। একই সাথে আহবায়ক কমিটি গঠন করে অনুমোদন নিতে বলা হয়েছে।
বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড। মাদরাসা বোর্ডের চেয়ারম্যানের নির্দেশে রেজিস্ট্রার প্রফেসর মো.সিদ্দিকুর রহমান ৩ মে স্বাক্ষরিত এক পত্রে এ আদেশ দেন।
এর আগে, পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলার লক্ষীপুর ইসলামিয়া আলিম মাদরাসার অধ্যক্ষ আব্দুল মতিন সরকার শিক্ষা বোর্ডের কাগজ জাল সৃষ্টি করে গভর্নিং বডি অনুমোদন করেছেন। মর্মে সাবেক অভিভাবক সদস্য আনছারুল ইসলাম অভিযোগ দায়ের করেন।তার প্রেক্ষিতে ২৮ মার্চ শিক্ষা বোর্ড অধ্যক্ষকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়ে ১০ কার্য দিবসের মধ্যে সন্তোষজনক জবাব চেয়েছিলেন।
অধ্যক্ষের দেয়া জবাব শিক্ষা বোর্ডের কাছে সন্তোষজনক না হওয়ায় এবং বোর্ডের কাগজ জাল সৃষ্টি করে গভর্নিং বডি কমিটি অনুমোদিত ভেঙ্গে দিয়ে আহবায়ক কমিটি করে অনুমোদন নিতে বলা হয়েছে।
 মাদরাসার নানা ধরনের অনিয়ম আর জাল কাগজ পত্র তৈরি করে কমিটি করার বিষয় নিয়ে একাধিক পত্রিকা ও অনলাইন নিউজ পোর্টালে সংবাদ প্রকাশিত হয়। পরে প্রকাশিত নিউজ নিয়ে মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড নড়েচড়ে বসে। পরবর্তীতে কমিটি ভেঙে দিতে বাধ্য হলো।