ঢাকা ১১:৫৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১০ জুলাই ২০২৪, ২৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বান্দরবানে শারক্বীয়া’র সামরিক শাখার কমান্ডারসহ ৯ জঙ্গি আটক

বান্দরবানে সদর উপজেলার টংকাবতি এলাকায় গভীর রাতে অভিযান চালিয়ে নতুন জঙ্গি সংগঠন ‘জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়া’র ৯ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব। অভিযানে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও গোলাবারুদসহ নানা সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে।
সোমবার বেলা ১২টায় বান্দরবান জেলা পরিষদের হল রুমে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক খন্দকার আল মঈন।
গ্রেপ্তারকৃত জঙ্গি সদস্যরা হলেন, ‘জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার পার্বত্য অঞ্চলের প্রশিক্ষণ কমান্ডার দিদার হোসেন চম্পাই, নারায়নগঞ্জ জেলার বাসিন্দা আল আমিন সর্দার, ঢাকা জেলার কামরাঙ্গীর চর এলাকার বাসিন্দা সাইনুন রায়হান, সিলেটে বিয়ানী বাজার এলাকার বাসিন্দা তাহিয়াদ চৌধুরী, একই জেলার শাহপরান এলাকার বাসিন্দা লোকমান মিয়া, কুমিল্লা লাকসামের ইমরান হোসেন, ঝিনাইদহ জেলার বাসিন্দা আমির হোসেন, বরিশাল জেলার বাসিন্দা আরিফুর রহমান ও ময়মনসিং জেলার বাসিন্দা শামীম মিয়া। অভিযানের সময় ঘটনাস্থল থেকে আরও ৫-৬ জন জঙ্গি পালিয়ে যায় বলেও জানান র‍্যাবের এই মুখপাত্র।
র‍্যাবের তথ্য মতে, এ নিয়ে নতুন জঙ্গি সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার বিভিন্ন পর্যায়ের ৫৯ জন সদস্য ও পার্বত্য অঞ্চল থেকে ৩৬ জন এবং পাহাড়ে বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কেএনএফ) ১৭ জন সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, গত বছর অক্টোবর থেকে বান্দরবানে রুমা ও রোয়াংছড়ির গহিন এলাকায় নতুন জঙ্গি সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়া ও পাহাড়ে বম পার্টি হিসেবে পরিচিত বিচ্ছিন্নতাবাদী সশস্ত্র সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট সদস্যদের বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছে যৌথ বাহিনি।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে যুদ্ধ বিরতি চুক্তিতে বাধা দেয়ার অভিযোগ

বান্দরবানে শারক্বীয়া’র সামরিক শাখার কমান্ডারসহ ৯ জঙ্গি আটক

আপডেট সময় : ০২:৫৭:৪৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৩ মার্চ ২০২৩

বান্দরবানে সদর উপজেলার টংকাবতি এলাকায় গভীর রাতে অভিযান চালিয়ে নতুন জঙ্গি সংগঠন ‘জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়া’র ৯ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব। অভিযানে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র ও গোলাবারুদসহ নানা সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে।
সোমবার বেলা ১২টায় বান্দরবান জেলা পরিষদের হল রুমে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক খন্দকার আল মঈন।
গ্রেপ্তারকৃত জঙ্গি সদস্যরা হলেন, ‘জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার পার্বত্য অঞ্চলের প্রশিক্ষণ কমান্ডার দিদার হোসেন চম্পাই, নারায়নগঞ্জ জেলার বাসিন্দা আল আমিন সর্দার, ঢাকা জেলার কামরাঙ্গীর চর এলাকার বাসিন্দা সাইনুন রায়হান, সিলেটে বিয়ানী বাজার এলাকার বাসিন্দা তাহিয়াদ চৌধুরী, একই জেলার শাহপরান এলাকার বাসিন্দা লোকমান মিয়া, কুমিল্লা লাকসামের ইমরান হোসেন, ঝিনাইদহ জেলার বাসিন্দা আমির হোসেন, বরিশাল জেলার বাসিন্দা আরিফুর রহমান ও ময়মনসিং জেলার বাসিন্দা শামীম মিয়া। অভিযানের সময় ঘটনাস্থল থেকে আরও ৫-৬ জন জঙ্গি পালিয়ে যায় বলেও জানান র‍্যাবের এই মুখপাত্র।
র‍্যাবের তথ্য মতে, এ নিয়ে নতুন জঙ্গি সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়ার বিভিন্ন পর্যায়ের ৫৯ জন সদস্য ও পার্বত্য অঞ্চল থেকে ৩৬ জন এবং পাহাড়ে বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কেএনএফ) ১৭ জন সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, গত বছর অক্টোবর থেকে বান্দরবানে রুমা ও রোয়াংছড়ির গহিন এলাকায় নতুন জঙ্গি সংগঠন জামাতুল আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়া ও পাহাড়ে বম পার্টি হিসেবে পরিচিত বিচ্ছিন্নতাবাদী সশস্ত্র সংগঠন কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্ট সদস্যদের বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছে যৌথ বাহিনি।