ঢাকা ০৯:২৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

টুইটারের দিল্লি ও মুম্বাই কার্যালয় বন্ধ করলেন এলন মাস্ক

  • অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৩:৩২:২৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩
  • 193

ভারতে টুইটারের তিনটি কার্যালয়ের মধ্যে দুইটি বন্ধ ঘোষণা করেছেন এলন মাস্ক। ওই দুই কার্যালয়ের কর্মীদের বাসা থেকে কাজ করতে বলা হয়েছে। ব্যয় কমাতে ও টুইটারে ডার্ক মোড অপশন চালু করতে প্রতিষ্ঠানটি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। খবর এনডিটিভির।
গত বছরের শেষের দিকে ভারতে প্রায় ২০০ জনেরও বেশি কর্মী ছাঁটাই করা টুইটারের নয়াদিল্লি ও মুম্বাইয়ে কার্যালয় বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। তবে টুইটারের বেঙ্গালুরুরের কার্যালয় খোলা রাখা হয়েছে।
গত বছরের ২৭ অক্টোবর চার হাজার চারশ কোটি ডলারে টুইটার কেনেন টেসলার প্রধান নির্বাহী এলন মাস্ক। মালিকানা নেওয়ার পর মাধ্যমটির ওপর নিজের নিয়ন্ত্রণ জোরদার করা শুরু করেন তিনি। এর অংশ হিসেবে মাস্ক বিশ্বজুড়ে কর্মীদের বরখাস্ত করেন ও কার্যালয় বন্ধ করে দেন। শুরুতেই প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী ও অর্থ ও আইন বিভাগের নির্বাহী কর্মকর্তাদের বিদায় দেন মাস্ক। ভেঙে দেন পরিচালনা পর্ষদ।
ওই সময় ছাঁটাইয়ের কারণ প্রসঙ্গে এলন মাস্ক জানান, কোম্পানির আর্থিক সমস্যার কারণে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। দুর্ভাগ্যজনকভাবে কোম্পানির যখন দিনে ৪০ লাখ ডলার ক্ষতি হচ্ছে, তখন আর অন্য উপায় নেই।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে যুদ্ধ বিরতি চুক্তিতে বাধা দেয়ার অভিযোগ

টুইটারের দিল্লি ও মুম্বাই কার্যালয় বন্ধ করলেন এলন মাস্ক

আপডেট সময় : ০৩:৩২:২৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

ভারতে টুইটারের তিনটি কার্যালয়ের মধ্যে দুইটি বন্ধ ঘোষণা করেছেন এলন মাস্ক। ওই দুই কার্যালয়ের কর্মীদের বাসা থেকে কাজ করতে বলা হয়েছে। ব্যয় কমাতে ও টুইটারে ডার্ক মোড অপশন চালু করতে প্রতিষ্ঠানটি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। খবর এনডিটিভির।
গত বছরের শেষের দিকে ভারতে প্রায় ২০০ জনেরও বেশি কর্মী ছাঁটাই করা টুইটারের নয়াদিল্লি ও মুম্বাইয়ে কার্যালয় বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। তবে টুইটারের বেঙ্গালুরুরের কার্যালয় খোলা রাখা হয়েছে।
গত বছরের ২৭ অক্টোবর চার হাজার চারশ কোটি ডলারে টুইটার কেনেন টেসলার প্রধান নির্বাহী এলন মাস্ক। মালিকানা নেওয়ার পর মাধ্যমটির ওপর নিজের নিয়ন্ত্রণ জোরদার করা শুরু করেন তিনি। এর অংশ হিসেবে মাস্ক বিশ্বজুড়ে কর্মীদের বরখাস্ত করেন ও কার্যালয় বন্ধ করে দেন। শুরুতেই প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী ও অর্থ ও আইন বিভাগের নির্বাহী কর্মকর্তাদের বিদায় দেন মাস্ক। ভেঙে দেন পরিচালনা পর্ষদ।
ওই সময় ছাঁটাইয়ের কারণ প্রসঙ্গে এলন মাস্ক জানান, কোম্পানির আর্থিক সমস্যার কারণে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। দুর্ভাগ্যজনকভাবে কোম্পানির যখন দিনে ৪০ লাখ ডলার ক্ষতি হচ্ছে, তখন আর অন্য উপায় নেই।